মানিকগঞ্জে এক যুবককে কুপিয়ে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ

মানিকগঞ্জ সদর উপজেলার গিলন্ড গ্রামের কাউসার মন্ডল (২২) নামের এক যুবককে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে।
এ ঘটনায় মানিকগঞ্জ সদর উপজেলার নবগ্রাম ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি ওয়াসিমসহ ৫ জনকে আসামী করে মানিকগঞ্জ সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে ভূক্তভোগী কাউছার মন্ডলের পিতা কাজেম মন্ডল।

মামলার বাদী ও অভিযোগপত্র সূত্রে জানা যায়, গত বুধবার রাত ৯ টার দিকে ঘিওর উপজেলার কর্চাবাধা থেকে বাড়ি ফেরার পথে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে সদর উপজেলার বরঙ্গখোলা কবরস্থানের এলাকা থেকে মোটর সাইকেলের গতিরোধ করে অতর্কিতভাবে হামলা চালিয়ে কাউছার মন্ডলকে হত্যার চেষ্টা করে ওয়াসীম বাহিনী। রামদা, চাপাটি ও গ্যাসপাইপ দিয়ে কাউছারের মাথা, কাধসহ বিভিন্ন স্থানে এলোপাথারী কুপিয়ে মারাত্বক জখম করা হয়।
এসময় পিটিয়ে মোটর সাইকেলে থাকা কাউছারের ঘনিষ্ট ছোট ভাই বিপ্লবকে কে লোহার পাইপ দিয়ে পিটিয়ে খালে ফেলে দেয়া হয়৷
পরে বিপ্লব ও কাউছার মন্ডলের চিৎকারে লোক জড় হলে আসামীরা পালিয়ে যায়।

রাত ১০ টার দিকে কাউছার মন্ডলকে প্রথমে মুন্নু মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে
কর্তব্যরত চিকিৎসক মানিকগঞ্জ ২৫০ শয্যা জেলা হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য রেপার্ট করেন, পরে আশঙ্কানজক অবস্থা বিবেচনায় ২৫০ শয্যা জেলা হাসপাতাল থেকে রেপার্ট করা হয় ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে।
বর্তমানে কাউছার মন্ডল ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে মুমুর্ষ অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছে।

স্থানীয় কয়েকজন বাসিন্দা ও নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন আওয়ামীলীগের নেতা জানান, ওয়াসিম ও তার বাহিনী বিভিন্ন সন্ত্রাসী কার্যক্রমের সাথে সম্পৃক্ত,
কিছুদিন আগেও সন্ত্রাসী কার্যক্রম ও রক্তপাতের অভিযোগে থানায় লিখিত অভিযোগ হয়েছিলো, পরে সেটা স্থানীয় চেয়ারম্যান উপস্থিত থেকে মিমাংশ করেন। ওয়াসিম বিবাহিত, বাচ্চা আছে ও মাত্র ৩-৪ বছর আগে ছাত্রদল করলেও বর্তমানে অদৃশ্য ক্ষমতাবলে বাগিয়ে নিয়েছে ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি পদ।

এ বিষয়ে মানিকগঞ্জ সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রউফ সরকার জানান, অভিযোগ পেয়ে ঘটনার সত্যতা যাচাইয়েএকজন সাব ইন্সপেক্টর কে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ঘটনাস্থল পরিদর্শনে ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে। হাসপাতালে খোঁজ নেয়া হয়েছে। কাউসার মন্ডল-এর হাত ও পা ভেঙেছে।
ঘটনাস্থল ঘিওর থানা এলাকায় পড়ায় আমরা ঘিওর থানায় পুনঃ অভিযোগ দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছি।

এ বিষয়ে ঘিওর থানার অফিসার ইনচার্জ রিয়াজ উদ্দিন বিপ্লব জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে । মামলার তদন্ত চলছে এবং আসামীদের গ্রেতারের চেষ্টা চলছে ।

Facebook Comments Box
ভাগ